• বীমা সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে সৃষ্টি বাংলাদেশের সর্বপ্রথম বীমা ব্লগে আপনাকে স্বাগতম
আজ সোমবার | ১৪ অক্টোবর, ২০১৯ | ২৯ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | সময়ঃ ০৮:২৭ অপরাহ্ন

Photo
১ হাজার ২০৩ কোটি টাকার মধ্যে ৮৩ কোটি টাকা ঋণ খেলাপি

পল্লী দারিদ্র্য বিমোচন ফাউন্ডেশনের (পিডিবিএফ) সবচেয়ে বড় সমস্যা হয়ে দেখা দিয়েছে খেলাপি ঋণ। মাত্র ১ হাজার ২০৩ কোটি টাকার তহবিলের এই প্রতিষ্ঠানটির বর্তমান খেলাপি ঋণ ৮৩ কোটি টাকা। এই টাকা আদায়ে যত দ্রুত সম্ভব ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দিয়েছেন প্রতিষ্ঠানটির সদ্য দায়িত্ব নেওয়া ভারপ্রাপ্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক আমিনুল ইসলাম।

আজ শনিবার রাজধানীর এলজিইডি ভবনের অডিটোরিয়ামে প্রতিষ্ঠানটির বার্ষিক কর্মপরিকল্পনা অগ্রগতি পর্যালোচনা অনুষ্ঠানে তিনি এই নির্দেশনা দেন।

আমিনুল ইসলাম বলেন, ছোট্ট একটি প্রতিষ্ঠান থেকে পিডিবিএফ বেড়ে উঠেছে ঠিকেই কিন্তু অপুষ্টিতে ভুগছে। এখন পর্যন্ত যারা এখানে দায়িত্ব পালন করেছেন তাদের অধিকাংশকেই অসম্মানে বিদায় নিতে হয়েছে। এদের কেউ হয়তো স্বেচ্ছায় চাকরি ছেড়ে দিয়েছেন আবার অনেককে চাকরি থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে। এমন চাপ নিয়ে কাজ করা প্রায় অসম্ভব। আমাদের প্রতিষ্ঠানে ঐক্য গড়ে তুলতে হবে।

খেলাপি ঋণের বিষয়ে তিনি বলেন, আমাদের আড়াই হাজার নিয়মিত কর্মকর্তা রয়েছেন। তারা যদি প্রত্যেকে দৈনিক ৫০০ টাকা খেলাপি ঋণ আদায় করেন তাহলে অল্প সময়ের মধ্যেই এই টাকা আদায় করা সম্ভব হবে। বর্তমানে পিডিবিএফের খেলাপি ও অনিয়মিত মিলে প্রায় ১২৩ কোটি টাকা বকেয়া। এই টাকা যেকোনো মূল্যে আদায় করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, আমাদের প্রতিষ্ঠান অনেক বড় হয়েছে কিন্তু গ্রোথ বাড়েনি। ঋণের প্রবৃদ্ধি মাত্র ২ শতাংশ। এখন যে আয় হয় তাতে নিজেরা চলতে পারি। কিন্তু পিডিবিএফ তৈরি করা হয়েছে দারিদ্র্য দূর করার জন্য। তাই বাড়তি ঋণ প্রদানের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানকে এগিয়ে নিতে হবে। নতুন নতুন উদ্যোক্তা খুঁজে বের করতে হবে। তাদের পাশে দাঁড়াতে হবে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় বিভাগের সচিব ও পিডিবিএফের গভর্নিং বডির চেয়ারম্যান মো. কামাল উদ্দিন তালুকদার বলেন, দেশের দারিদ্র্য বিমোচনে এই প্রতিষ্ঠানটি প্রতিষ্ঠা করা হয়েছিল। কিন্তু অত্যন্ত দুঃখজনক বিষয়, আগের ব্যবস্থাপনা পরিচালক স্বায়ত্তশাসনের নাম করে মন্ত্রণালয়কে পাশ কাটিয়ে একক সিদ্ধান্ত সবকিছু করেছেন। যার ফলে প্রতিষ্ঠানটির অগ্রগতি থমকে যায়। তিন প্রতিষ্ঠানের অর্থ তছরুপ করেছেন। কিন্তু বর্তমানে আবার প্রতিষ্ঠানটি ঘুরে দাঁড়াতে চেষ্টা করছে। এর প্রতিটি স্তরে আর্থিক সক্ষমতা বাড়ানোর জন্য প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।




-- ব্লগার দেলোয়ার হোসেন এর অন্যান্য পোস্টঃ --
আমার সম্পর্কে
  • সর্বশেষ ব্লগ
  • জনপ্রিয় ব্লগ
3 7 5 2 1
আজকের প্রিয় পাঠক
1 1 8 3 4 0 3 7
মোট পাঠক